ট্রেনের টিকেট কাটার নতুন নিয়ম e Ticket Railway bd Train Ticket bd

১০ ই মার্চ এর পর নতুন আপডেট এসেছে বাংলাদেশ রেলওয়ে  এর অনলাইন ট্রেনের টিকেট ক্রয়ের ক্ষেত্রে। বাংলাদেশ রেলওয়ে অতিরিক্ত মহাপরচালক শহাদাত আলী জানান ট্রেনের টিকেট বিক্রয় এর ক্ষেত্রে নতুন নির্দেশনা জারি করেছেন। নতুন নির্দেশনা গুলো নিচে দেখুন।

ইতিপূর্বে আন্তঃনগর ট্রেনের সকল টিকেটৃ ক্রয়ের ক্ষেত্রে  একটি মাত্রা ছিল। একজন ব্যাক্তি সাপ্তাহে একটা জাতীয় পরিচয় পত্র দিয়ে ২ বার টিকেট ক্রয় করে পারতেন। এই নিয়মের উপর ব্যপক পরিবর্তন আনা হয়েছে। 

যারা ট্রেনে ভ্রমণ করেন তাদের জন্য এটা একটি সুখবর

ট্রেনের টিকেট বিক্রির নতুন দিক নির্দেশনা

ট্রেনের টিকেট ক্রয়ের নতুন নির্দেশনা হল এখন একজন যাত্রী তার ভোটার আইডি কার্ড দেখিয়ে যত খুশি ততবার ট্রেনের টিকেট ক্রয় করতে পারবে এবং ভ্রমণ করতে পারবে কিন্তু ইতিপূর্বে এটি লিমিট করে দেওয়া ছিল যার কারণে একজন যাত্রী চাইলেই বারবার টিকেট কাটতে পারতো না সপ্তাহে সেটা একটা লিমিটের মধ্যে ছিল কিন্তু এখন ১০ই মার্চের যে আপডেটটি দিয়েছে বাংলাদেশ রেলওয়ে এর পর থেকে একজন যত্রি চাইলে সাপ্তাহে যতখুশি ততবার ভ্রমণ করতে পারবে।

তবে আগের নিয়ম অনুযায়ী একজন যাত্রী একটি স্টেশন থেকে একবারের বেশি টিকেট কাটতে পারবে না এ নির্দেশনা রয়েছে তবে একজন যাত্রী একই দিনে একটি স্টেশন থেকে চারটি টিকেট কাটতে পারবে এতে কোন সমস্যা নেই।

তবে বিভিন্ন স্টেশন থেকে সাত দিনের মধ্যে যেকোনো সময় বারবার টিকেট ক্রয় করতে পারবে তবে একটি স্টেশন থেকে শুধু একই সাথে চারটি টিকেট ক্রয় করার সুযোগ থাকছে।

ধরুন একজন ব্যক্তি ঢাকা থেকে ময়মনসিংহের টিকেট কাটবে তাই এক্ষেত্রে সে ঢাকা থেকে একদিনে সর্বোচ্চ চারটা টিকেট কাটতে পারতেছে এবং ওই ঢাকা স্টেশনে একদিনে চারটার বেশি আর কাটতে পারবে না এবং তিনি যে ময়মনসিংহে যাবে ময়মনসিং স্টেশন থেকে আবার ফেরার পথে একই ভাবে চারটি টিকেট ক্রয় করতে পারবে‌ একই সময়।

See also  পল্লী বিদ্যুৎ মিটার আবেদন করার নিয়ম ২০২৩ palli bidyut meter application Online rebpbs.com
ট্রেনের টিকেট কাটার নতুন নিয়ম, কিভাবে নতুন নিয়মে ট্রেনের টিকেট কাটবো? Eticket Railway gov bd how to buy Train Ticket bd
e Ticket Railway

ট্রেনের টিকেট কাটতে কি কি লাগে।

অনলাইন থেকে যদি আপনি ট্রেনের টিকেট কাটতে চান তাহলে আপনাকে কিছু জিনিস থাকতে হবে সেগুলো হচ্ছে আপনার 

  • একটা স্মার্টফোন থাকতে হবে এন্ড 
  • ইন্টারনেট কানেকশন লাগবে 
  • আর আপনার একটি মোবাইল নাম্বার 
  • আপনার ভোটার আইডি কার্ড 
  • ইমেইল এড্রেস 
  • টিকিটের ফি দেওয়ার জন্য বিকাশ নম্বর , নগদ একাউন্ট 

অথবা অন্যান্য অ্যাকাউন্ট যেমন ক্রেডিট কার্ড বা ডেবিট কার্ড থাকলেও সেগুলো দিয়ে করতে পারবে।

উপরের জিনিসগুলো আপনার কাছে থাকলে আপনি ট্রেন টিকেট ক্রয় করতে পারবেন নিজে নিজেই।

ট্রেনের টিকেট কাটার নিয়ম।

আপনি চাইলে সরাসরি স্টেশনে গিয়েও টিকেট ক্রয় করতে পারেন অথবা আপনি চাইলে ঘরে বসে অনলাইনে টিকেট ক্রয় করতে পারেন যেভাবে টিকেট ক্রয় করেন না কেন আপনার ভোটার আইডি কার্ড প্রয়োজন হবে এন্ড আপনার যদি বাংলাদেশ রেলওয়ে ই টিকেট সার্ভিস এর ওয়েবসাইটে একাউন্ট না করে থাকেন তাহলে আপনার ভোটার আইডি কার্ড দিয়ে ভেরিফিকেশন করে নিবে অনথ্যায় ক্ষেত্রে আপনি স্টেশন থেকে টিকিট ক্রয় করতে পারবেন না। তাই স্টেশন থেকে টিকিট ক্রয় গ্রুপে আপনাকে প্রথমে অবশ্যই বাংলাদেশের রেলওয়ে টিকেট ওয়েবসাইট থেকে ভোটার আইডি কার্ড দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করে নিতে হবে তবে এটা একবার করলেই সারা জীবন টিকেট ক্রয় করতে পারবে।

বাংলাদেশ রেলওয়ে এটিকেট ওয়েবসাইট রেজিস্ট্রেশন করতে হলে আপনাকে আপনার মোবাইল নাম্বার এবং ভোটার আইডি কার্ড নম্বর জন্ম তারিখ এগুলো সিলেক্ট করবেন তারপর আপনার মোবাইল নাম্বার একটি otp কোড যাবে সেটি বসিয়ে সাবমিট করবেন তাহলে আপনার রেজিস্ট্রেশন কমপ্লিট হয়ে যাবে। এবং আপনার মোবাইল নম্বর এবং পাসওয়ার্ড মনে রাখবেন পরবর্তীতে লগইন করে টিকিট ক্রয়ের জন্য।

টিকেট ক্রয় করা একদম সহজ, কঠিন কিছুই না।  একাউন্টে লগইন করে কোথায় থেকে কোথায় যাবেন সেটা সিলেক্ট করবেন। তারপর তারিখ সিলেক্ট করবেন, তার পর সার্চ দিয়ে দেখবেন কোন কোন ট্রেন এভেইলেবল আছে, তারপর আপনার পছন্দ অনুযায়ী কোচ আসন এসি/নন এসি সিলেক্ট করে বিকাশের মাধ্যমে পেমেন্ট করে খুব সহজেই টিকেট ক্রয় করতে পারবেন। আর ভ্রমনের সময় অবশ্যই ভোটার আইডি কার্ড সাথে রাখবেন।